বিশ্বায়ন নিজ পরিচয়ে

যুগটা বিশ্বায়নের। যুগটা গ্লোবাল ভিলেজের। বাণিজ্যটাই মুল। তবে অন্যের মতো হয়ে যাওয়াটা হতাশার, আতঙ্কের। জাপানের ছেলেটি তো চায় না হতে মার্কিনি। মঙ্গলিয়ান মেয়েটা মানছেনা চীনের আগ্রাসন। আইরিশরা কি কখনো চাইবে ড্যানিশ হতে?  দক্ষিণ কোরিয়ার বাইরেটা পশ্চিমে, ভেতরটা তো প্রাচ্যে। চেক ছেলেটি কি চাইবে রাশিয়ান হতে? তবে কেন বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়া বাংলাদেশী, স্মার্ট যুবক বলিউডের নায়ক কে অনুকরণ করবে অন্ধের মতোন? কেন বাংলাদেশী মধ্যবয়সী, শিক্ষিত, মহিলা লাল লিপস্টিক আর চাকাও-মাকাও পোশাক পরে বলিউডের নায়িকার ফটোকপি হতে চাইবে? কেন রেডিও-জকিরা অদ্ভুত উচ্চারণকে আধুনিকতার মাপকাঠি মনে করবে?

বিশ্বায়নের যুগে বিশ্বের সব প্রান্তে পৌঁছানো যায় অবলীলায়, তবে পৌঁছতে হবে নিজ পরিচয়ে, নিজের সংস্কৃতি নিয়ে।


Comments

Popular posts from this blog

How strong is Myanmar's military?

বিমান দুর্ঘটনা

পঁচাত্তরের নভেম্বরঃ নাগরদোলায় অনৈক্য,বিভক্তি ও সংঘাত (প্রথম পর্ব)